নীড়পাতা

টিকিট কাউন্টার

ওয়েটিং রুম

এখন 0 জন যাত্রী প্লাটফরমে আছেন

নতুন যাত্রী

  • সুশান্ত কুমার
  • আলমামুন শাওন
  • সমুদ্র শাঁচি
  • অরুপ কুমার দেবনাথ
  • তাপস ভৌমিক
  • ইউসুফ শেখ
  • আনোয়ার আলী
  • সৌগত চর্বাক
  • সৌগত চার্বাক
  • মোঃ আব্দুল বারিক

আপনি এখানে

বিমানযাত্রীরাই বাংলাদেশে VVIP !


দূরপাল্লার বিমানে যখন যাই কোন ভিনদেশে, মাঝে মাঝে এয়ারপকেটে ঢুকে বিমানটি ক্রমাগত পড়ে যেতে থাকে নিচের দিকে। তখন মনে মনে বলি, আহারে নভযানটি যদি আফগানিস্তান, পাকিস্তানের মত কোন ফালতু দেশে না পড়ে, ইউরোপিয়ান উন্নত কোন মানবিক দেশে পড়তো! তাহলে অন্তত মৃতদেহকে সুন্দরভাবে সৎকার করতো ওরা! কিন্তু অনেকবার বিমান-জার্নি করলেও কখনো দুর্ঘটনায় পড়িনি আমি! হয়তো এমন একটা লেখা লিখবো এ কারণেই! হয়তো অনেকের ভাল লাগবেনা আমার এ লেখাটা। তারপরো বিবেকের একটা দহনে পুড়ি আমি সব সময়!
:
নেপালে বিমান দুর্ঘটনায় নিহত ২৩ বাংলাদেশির মরদেহ ঢাকায় এসেছে আজ। বিমান বাহিনির কার্গো বিমানে এনে রাজকীয় সংবর্ধনা দেয়া হয়েছে ২৩-জনের লাশ বা মৃতদেহকে। যেন তারা "জাতীয় বীর"! অথচ তারা দেশ রক্ষার বা দেশের কোন কাজে গিয়ে শহীদ হননি। নিতান্তই নিজেদের সখ পুরণে চিত্তবিনোদনের জন্যে নেপাল গিয়ে বিমান দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছেন তারা। প্রত্যেকটি মৃত্যু দুখজনক সবার জন্যে। আমিও সমবেদনা জানাই নিহত বাংলাদেশিসহ ইউএস বাংলার নিহত সকল যাত্রীর প্রতি। তারপরো এসব কর্মকান্ড দেখে বাংলাদেশি একজন সচেতন মানুষ হিসেবে কতগুলো প্রশ্ন জেগেছে মনে, যার সংক্ষিপ্ত সংকলন নিম্নরূপ !
:
নদীমাতৃক বাংলাদেশে প্রায় প্রতিবছর লঞ্চডুবির মত ঘটনা ঘটে দেশের বড় নদীগুলোতে। বড় লঞ্চগুলোর দুর্ঘটনায় দেখা যায়, "হামজা" বা "রুস্তম" গিয়ে লঞ্চটি বড় বিধায় তুলতে পারছে না, কিংবা কাছি ছিঁড়ে যাচ্ছে বারবার কিংবা প্রবল স্রোতের কারণে "ট্রেস" করা যাচ্ছেনা লঞ্চটির। স্বজনরা দিন-রাত দেশি নৌকো বা ট্রলার নিয়ে চষে বেড়াচ্ছে পদ্মা মেঘনার ঘোলা জল। সরকার হামজা/রুস্তম পাঠিয়ে শেষ করেছে তার দায়িত্ব। সেনাবাহিনির কোন হেলিকপ্টার কিংবা নৌবাহিনির উদ্ধারকারী কোন গানবোট বা "রেসকিউ বোট" যায়নি ঘটনাস্থলে। ২/৩ দিন পর দেখা যায়, যখন হামজা-রুস্তমে টেনে তুললো ডুবন্ত লঞ্চটি, তখন তার মধ্যে অন্তত শ'খানেক গলিত লাশ। ৬০০/৭০০ যাত্রীর মধ্যে ২০০/৩০০ সাঁতরে উঠেছে তীরে। বাকিদের কোন খোঁজ নেই। স্বজনরা খুঁজতে খুঁজতে গলিত ভাসমান লাশ সংগ্রহ করছে সাগর মোহনায় ৫/৭ দিন পর। জেলেরা তাদের জালে পাচ্ছে ভাসমান মানুষের লাশ। সরকার কখনো ছাগল কিংবা ৫/১০ হাজার টাকা ক্ষতিপুরণ দেয়ার কথা ঘোষণা করে সান্ত্বনা পুরস্কারের মত। কিন্তু দুর্ঘটনায় নিহত ৩০০/৪০০ মৃত মানুষের সঠিক তালিকা কখনো তৈরি হয়না। এ নিয়ে রাষ্ট্রীয় কোন শোক পালিত হয় বলে দেখিনি আমি আমার জীবনে! অথচ একেকটা লঞ্চ দুর্ঘটনায় US-Bangla বিমানের চেয়ে অন্তত ৪/৫ গুণ বেশি মানুষ জলে ডুবে শ্বাসরুদ্ধ হয়ে মারা যায়। মৃতদের সাড়িতে নারী আর শিশু থাকে বেশি। কারণ শাড়ি পরা নারীরা সাধারণত সাঁতরে উঠতে পারেনা তীরে।
:
দেশে প্রায় প্রতিদিন সড়ক দুর্ঘটনায় কমবেশি ১০/২০ জন মানুষ নিহত হয়। প্রায়ই বাস খাদে পরে, ব্রিজের রেলিং ভেঙে নদীতে পড়ে ২০/৩০ জন মানুষ মরে, সড়কের পাশে তাদের লাশ পড়ে থাকে স্তুপাকারে! তারপর লাশুগুলো ঢাকা মেডিকেলের মর্গে যায় ট্রাক বা ভ্যানে। স্বজনদের তা ফেরত নিতে "ডোম"কে টাকা পয়সা না দিলে যথাসময়ে তা ফেরতও পায়না তারা সহজে। রাষ্ট্র প্রতিনিয়ত সড়কে নিহত এসব মৃত্যুকে যেন স্বাভাবিক মেনে নিয়েছে। তাই রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী বা মাননীয় স্পীকার এসব মৃত্যুতে সাধারণত শোক প্রকাশ করেনা কিংবা খোঁজখবর রাখে বলে দেখিনি আমি মিডিয়াতে।
:
আমাদের বৈদেশিক মুদ্রার প্রধান চালিকাশক্তি হচ্ছে প্রবাসি বাঙালিদের আয়। অন্তত ৯০-লাখ প্রবাসি বিদেশে মাথার ঘাম পায়ে ফেলে টাকা আয় করে দেশে পাঠায়, যা দিয়ে আমদানী নির্ভর বাংলাদেশ সপ্তপদি পণ্য আমদানী করে রাজার হালে চলে। এমন কোন বিদেশী পণ্য নেই, যা পাওয়া যাবেনা বাংলাদেশের বাজারে। প্রবাসে প্রায়ই নানাবিধ দুর্ঘটনায় নিহত হন অনেক বাংলাদেশি। কারো কারো লাশ স্বজনরা দেশে আনেন নানাবিধ চেষ্টা তদবিরে। কারো লাশ বিদেশের মাটিতেই সমাহিত হয় স্বজনহীন একাকি পরিবেশে। বৈদেশিক মুদ্রা উপার্জনকারী এসব প্রবাসিদের লাশ দেশে এলে রাষ্ট্রীয় কোন সম্মান জানানো হয় বলে শুনিনি আমি।
:
অথচ বাংলাদেশের কোন কাজে নয়, একান্ত নিজেরা আনন্দ ফূর্তি করতে নেপাল গিয়ে বিমান দুর্ঘটনায় নিহতের পর, তাদের প্রতি রাষ্ট্রীয় দায়িত্ব, জাতীয় শোক, পতাকা অর্ধনমিত, সামরিক বিমানে লাশ আনা, স্টেডিয়ামে জানাজা ইত্যাদি দেখে মনে প্রাণে বলছি, "হে আকাশ গড, আমি যেন দেশে লঞ্চ দুর্ঘটনায়, সড়ক দুর্ঘটনায় বা প্রবাসি শ্রমিক হয়ে বিদেশে না মরে, বাংলাদেশের কোন বিমান দুর্ঘটনায় মৃত্যুবরণ করি, যাতে রাজকীয় সম্মান পাই এভাবে বাংলাদেশ নামক রাষ্ট্র থেকে!

Comments

ড. লজিক্যাল বাঙালি এর ছবি
 

!

===============================================================
জানার ইচ্ছে নিজেকে, সমাজ, দেশ, পৃথিবি, মহাবিশ্ব, ধর্ম আর মানুষকে! এর জন্য অনন্তর চেষ্টা!!

 
ড. লজিক্যাল বাঙালি এর ছবি
 

!

===============================================================
জানার ইচ্ছে নিজেকে, সমাজ, দেশ, পৃথিবি, মহাবিশ্ব, ধর্ম আর মানুষকে! এর জন্য অনন্তর চেষ্টা!!

 
ড. লজিক্যাল বাঙালি এর ছবি
 

!

===============================================================
জানার ইচ্ছে নিজেকে, সমাজ, দেশ, পৃথিবি, মহাবিশ্ব, ধর্ম আর মানুষকে! এর জন্য অনন্তর চেষ্টা!!

 

Post new comment

Plain text

  • সকল HTML ট্যাগ নিষিদ্ধ।
  • ওয়েবসাইট-লিংক আর ই-মেইল ঠিকানা স্বয়ংক্রিয়ভাবেই লিংকে রূপান্তরিত হবে।
  • লাইন এবং প্যারা বিরতি স্বয়ংক্রিয়ভাবে দেওয়া হয়।
CAPTCHA
ইস্টিশনের পরিবেশ পরিচ্ছন্ন রাখার জন্য আপনাকে ক্যাপচা ভেরিফিকেশনের ধাপ পেরিয়ে যেতে হবে।

বোর্ডিং কার্ড

ড. লজিক্যাল বাঙালি
ড. লজিক্যাল বাঙালি এর ছবি
Offline
Last seen: 12 ঘন্টা 12 min ago
Joined: সোমবার, ডিসেম্বর 30, 2013 - 1:53অপরাহ্ন

লেখকের সাম্প্রতিক পোস্টসমূহ

কু ঝিক ঝিক

ফেসবুকে ইস্টিশন

SSL Certificate
কপিরাইট © ইস্টিশন.কম ® ২০১৬ (অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম) | ইস্টিশন নির্মাণে:কারিগর